স্বাস্থ্যকর দেশের তালিকায় ভারত-পাকিস্তানের চেয়ে এগিয়ে বাংলাদেশ

বিশ্বের মোট ১৪৯টি দেশ নিয়ে এই তালিকা প্রকাশ করা হয়। এখানে স্বাস্থ্যের পাশাপাশি বিবেচনায় নেয়া হয়েছে অর্থনৈতিক অবস্থা, ব্যবসায়ের পরিবেশ, শাসনব্যবস্থা, শিক্ষা, নিরাপত্তা, ব্যক্তিস্বাধীনতা, সামাজিক মূলধন এবং প্রাকৃতিক পরিবেশ।

এই কয়েকটি খাতের মধ্যে বাংলাদেশ সবচেয়ে ভালো অবস্থানে রয়েছে নিরাপত্তা খাতে। এখানে বাংলাদেশের অবস্থান ৬১ নম্বরে।
এছাড়া অর্থনৈতিক অবস্থায় ৮৫ নম্বরে, ব্যবসার পরিবেশে ১২৩ নম্বরে, শাসন ব্যবস্থায় ৮৯ নম্বরে, শিক্ষায় ১১১ নম্বরে, ব্যক্তিস্বাধীনতায় ১০১ নম্বরে, সামাজিক মূলধনে ৯৭ নম্বরে এবং প্রাকৃতিক পরিবেশে ১৩৫ নম্বরে অবস্থান করছে বাংলাদেশ। সব মিলিয়ে তালিকায় বাংলাদেশের অবস্থান ১০৯।

স্বাস্থ্যকর দেশের তালিকায় সিঙ্গাপুর শীর্ষে অবস্থান করলেও সম্মিলিত তালিকার শীর্ষে রয়েছে নরওয়ে। দেশটি অর্থনৈতিক অবস্থায় ৭ নম্বরে, ব্যবসার পরিবেশে ১১ নম্বরে, নিরাপত্তায় ১ নম্বরে, স্বাস্থ্যে ৮ নম্বরে ,শাসন ব্যবস্থায় ৩ নম্বরে, শিক্ষায় ৪ নম্বরে, ব্যক্তিস্বাধীনতায় ৯ নম্বরে, সামাজিক মূলধনে ৩ নম্বরে এবং প্রাকৃতিক পরিবেশে ৮ নম্বরে অবস্থান করছে।

সম্মিলিত তালিকায় ভারতের অবস্থান ৯৪ নম্বরে হলেও স্বাস্থ্যখাতে তাদের অবস্থান ১০৯ নম্বরে। অন্যদিকে পাকিস্তানের সম্মিলিত অবস্থান ১৩৬ নম্বরে এবং স্বাস্থ্যে দেশটির অবস্থান ১২২ নম্বরে। স্বাস্থ্যখাতের তালিকায় তলানিতে অবস্থান করছে মধ্য আফ্রিকান প্রজাতন্ত্র এবং সম্মিলিত তালিকায় সবার শেষে রয়েছে আফগানিস্তান।

2018-12-04T09:37:12+00:00December 4th, 2018|স্বাস্থ্য|
Advertisment ad adsense adlogger