যে খাবারে মেলে উপকারী ব্যাকটেরিয়া

প্রোবায়োটিক হলো অন্ত্রের স্বাস্থ্যকর ব্যাকটেরিয়া। এদের সংখ্যা বৃদ্ধির জন্য যে খাবারগুলো খেতে হয় সেগুলো কিন্তু দারুণ স্বাস্থ্যকর। এখানে বিশেষজ্ঞরা এমনই কিছু খাবারের কথা বলেছেন যেগুলো দারুণ পুষ্টিকর। খাবারগুলো একেবারেই সাধারণ মনে হতে পারে। কিন্তু ব্যাপক শক্তিশালী।

কালচারড দই
প্রোবায়োটিকের প্রাকৃতির উৎসের মধ্যে সবচেয়ে ভালোটি হলো দই। এটা তৈরি করতে হয় দুধ দিয়ে যাকে ব্যাকটেরিয়ার মাধ্যমে ফার্মেন্টেশন প্রক্রিয়ায় দই করা হয়। দই কেবল প্রোবায়োটিক নয়, হাড়ের স্বাস্থ্যের জন্যেও ভালো। হজম প্রক্রিয়াকেও সুষ্ঠু করে তোলে।

আঁচার
যেকোনো ধরনের আঁচার প্রোবায়োটিক সৃষ্টি করে। কারণ আঁচার গাঁজন প্রক্রিয়ায় তৈরি করা হয়। এটি স্বাস্থ্যকর ব্যাকটেরিয়া সৃষ্টি করে।

ডার্ক চকলেট 
খুব মজার এক খাবার। কে না পছন্দ করেন চকলেট? অন্যান্য দুগ্ধজাত খাবারের চেয়ে ৪ গুন বেশি প্রোবায়োটিক দিতে পারে ডার্ক চকলেট।

ঘোল 
অতি পরিচিত এক পানীয়। ঘোল কে না খেয়েছেন? আমরা ঘোলকে উপকারী পানীয় হিসেবেই চিনি। এই ঘোল কিন্তু প্রোবায়োটিকের দারুণ উৎস।

2019-01-14T12:16:17+00:00January 14th, 2019|স্বাস্থ্য|
Advertisment ad adsense adlogger