চীনে ভূমিধসে ৬ জনের মৃত্যু, শতাধিক নিখোঁজ

চীনের দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলীয় সিচুয়ান প্রদেশের একটি পার্বত্য গ্রামে ভয়াবহ ভূমিধসে অন্তত ৬ জনের মৃত্যু হয়েছে এবং শতাধিক

নিখোঁজ রয়েছে। রাষ্ট্রীয় বার্তা সংস্থা বলছে, সম্ভবত তাদের সবাই চাপা পড়ে প্রাণ হারিয়েছে। উদ্ধারকর্মীরা ঘটনাস্থলে গতকাল শনিবার ব্যাপক তল্লাশি অভিযান চালান।

সিচুয়ানের মাওসিয়ান এলাকার সিনমো গ্রামে গতকাল স্থানীয় সময় সকাল ছয়টার দিকে একটি পাহাড় আংশিক ধসে পড়ে প্রায় ৪৬টি বাড়িঘর বিনষ্ট হয়। চীনা সংবাদপত্র পিপলস ডেইলি ঘটনাস্থলের কয়েকটি ছবি প্রকাশ করেছে। এতে দেখা যায়, উদ্ধারকর্মীরা বুলডোজার দিয়ে মাটি ও বড় বড় পাথর সরিয়ে দেখছেন কেউ চাপা পড়ে আছে কি না। পাথর অপসারণের কাজে তাঁরা ক্ষেত্রবিশেষে বড় বড় দড়ি ব্যবহার করেন এবং তল্লাশিকাজে কুকুরের সাহায্য নেন।

স্থানীয় কর্মকর্তারা বলেন, ধ্বংসস্তূপ থেকে এক দম্পতি এবং একটি শিশুকে উদ্ধার করে হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। আরেকজনকে জীবিত অবস্থায় পাওয়া গেলেও শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত তাঁকে উদ্ধারের চেষ্টা চলছিল। ভূমিধসের কারণে একটি নদীর প্রায় দুই কিলোমিটার অংশ এবং সড়কের দেড় কিলোমিটারের বেশি অংশ বন্ধ হয়ে যায়।

উদ্ধারকাজে পুলিশ, সেনাবাহিনী ও দমকল বাহিনীর শত শত সদস্য অংশ নেন। ঘটনাস্থলে তাৎক্ষণিক চিকিৎসা দিতে কয়েকজন চিকিৎসকও হাজির ছিলেন। পুলিশ কর্মকর্তা চেন তিয়েবো বলেন, গত কয়েক দিনে ভারী বৃষ্টিপাতের কারণে এই ভূমিধস হয়েছে।

চীনা প্রেসিডেন্ট সি চিন পিং উদ্ধারকর্মীদের ‘সর্বাত্মক প্রচেষ্টা’ সহযোগে কাজ করার আহ্বান জানিয়েছেন। দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওয়াং ইয়ংবো বলেন, ওয়েনচুয়ানের ভূমিকম্পের পরে এবারই তাঁদের এলাকায় সবচেয়ে বড় ভূমিধস নামল। ২০০৮ সালে ওই ভূমিকম্পে ৮৭ হাজার মানুষের প্রাণহানি হয়েছিল।

2017-06-25T11:07:47+00:00June 25th, 2017|আন্তর্জাতিক|
Advertisment ad adsense adlogger