পৈত্রিক সম্পত্তির ভাগাভাগি নিয়ে বাড়ি ও দোকানঘর ভাঙ্গচুর করেছে আপন ভাই ও তার ছেলেরা

নিজস্ব প্রতিবেদক ॥ পৈত্রিক সম্পত্তির ভাগাভাগি নিয়ে বাড়ি ও দোকানঘর ভাঙ্গচুর করেছে আপন ভাই ও তার ছেলেরা । ঘটনাটি ঘটেছে কুষ্টিয়ার দৌলতপুর উপজেলার বিলবোয়ালিয়া গ্রামে । জানা যায়, বিল বোয়ালিয়া গ্রামের রহমত মন্ডলের ছেলে আবুজেল মন্ডল ও সিরাজ মন্ডল । পৈত্রিক সম্পত্তি ভাগাভাগি না করে উভয়ই সুবিধামত জায়গা নিয়ে বাড়িঘর নির্মান করেছে । এ নিয়ে দীর্ঘদিন সিরাজ মন্ডল ও তার ছেলেরা আবুজেল মন্ডলকে বাড়িসহ দোকানঘর ভেঙ্গে নতুন করে ভাগবাটোয়ারা করার জন্য চাপ দিয়ে আসছে । কিন্তুু আবুজেল মন্ডল তাদেও প্রস্তাব দেই যেহেতু উভয়ই পাকা বাড়ি ও দোকান ঘর নির্মান করেছে সুতরাং জমি যার যার দখলে আছে সেভাবেই ভাগবাটোয়ার করার জন্য । কিন্তুু আবুজেল মন্ডল, তার ছেলে রনি ও জনি প্রস্তাব প্রত্যাক্ষান করে দোকান ও বাড়ি ভেঙ্গে নতুন করে ভাগবাটোয়ারা করার প্রস্তাব দিতে থাকে । এই সূত্রধরে গত ২৯ জলাই ২০১৬ তারিখে সিরাজ মন্ডল তার ছেলে রনি,জনি ও রাশেদাসহ এলাকার কিছু ভাড়াটে গুন্ডা আবুজেল মন্ডলের দোকান ও বাড়ি ঘরে ব্যাপক হামলা ও ভাংচুর চালায় । এসময় আবুজেল মন্ডল তাদেও নিষেধ করলে তাকেও শারীরিকভাবে নির্যাতন করে । আবুজেল মন্ডল অভিযোগ করে বলেন,এলাকার কিছু প্রভাবশালী ক্ষমতার জোরে টাকা পয়সা খেয়ে আমাদেও অনেক আগে থেকে বিভিন্নভাবে হুমকী ধামকী দিঢে আসছে ও জায়গা ছেড়ে দেওয়ার জন্য চাপ প্রয়োগ করছে । বিষয়টি নিয়ে দৌলতপুর থানাতে অভিযোগ দিতে গেলে পুলিশ অভিযোগ না নিয়ে উল্টো আমাদেরকেই বিভিন্ন হুমকী ধামকী দিয়ে থানা থেকে বের করে দিয়েছে । এলাকার প্রভাবশালীরা তাদেও সাথে থেকে প্রতিনিয়ত আমাদেও হুমকী ধামকী দিচ্ছে । আমরা তাদের শর্ত মোতাবেক জায়গাজমি ভাগ না করলে প্রাণনাশের হুমকী দিচ্ছে । এ অবস্থায় আমরা প্রচন্ড ভয়ে আছি । বিষয়টি নিয়ে এলাকার চেয়ারম্যান মহিউদ্দিন বিশ্বাসের সাথে মোবাইলে যোগাযোগ করলে তিনি ফোন ধরেন নি ।

Advertisment ad adsense adlogger