কুষ্টিয়া নিউজ ॥ কুষ্টিয়ার দৌলতপুরে হোগলবাড়িয়া ইউপি’র সোনাইকুন্ডি গ্রামের জনবহুল পরিবেশে বাইজিদ এগ্রো ফুড কারখানার ছায়ে ও বাইজিদ ম্যাচ কারখানার বারুদের গন্ধে এলাকাবাসী অতিষ্ঠ হয়ে পড়েছে।
জানাগেছে গ্রামীণ পরিবেশে কারখানাটি হওয়ায় মানুষের বসবাসের চরম বিপর্যয় ঘটেছে, বিষাক্ত ছায়ে ও বারুদের গন্ধে এলাকার মানুষের শ্বাস জনিত সমস্যা যেমন যক্ষা,হাপানী, জন্ডিজের মত কঠিন রোগ দেখা দিয়েছে।

গত ২৫ জুন বৃহস্পতিবার শিলটন (২৫) নামে এক যুবকের যক্ষা ও শ্বাস জনিত কারণে অকাল মৃত্যু ঘটেছে। কারখানার বিশাক্ত ছায়ে শুধু মানুষের ক্ষতি নয় আবাদী ফসল ও গাছ পালার উপর চরম প্রভাব পড়তে শুরু করেছে। কারখানা বিশাক্ত ছাই রাখার নিজেদের জায়গা না থাকায় রাতের অন্ধকারে ও সরকারী রাস্তায় গোপনে ছাই ঢেলে রাখার কারনে স্কুলের ছাত্র ও এলাকাবাসী চরম দূর্ভোগ পোহাচ্ছে।

এ ছাড়া হিসনা নদী কারখানার মালিকের নামে লিজ নিয়ে সেখানে ধান পচানো ও বারুদের পানি এবং কারখানার ছাই ফেলায় সেখানে আর মাছ হয়না, নদী তার পরিবেশ হারাতে বসেছে, বিশাক্ত পানি ছড়িয়ে পড়ায় আসেপাশের মাছ চাষীদের মাছ মরে যাচ্ছে। প্রভাব শালী কারখানার মালিকের লাঠিয়াল বাহিনীর ভয়ে কেহ প্রতিবাদ করার সাহস পাচ্ছেনা।

সোনাইকুন্ডি পশ্চিম পাড়া গ্রামের প্রবীণ শিক্ষক জানান, তার এলাকার সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের চার পাশে ও রাস্তায় ছাই ফেলে যাওয়ায় স্কুলের ছাত্র ও পথচারীরা চরম দূর্ভোগে পড়েছে, পথচারীদের পায়ের ছায়ে বাড়ীঘর কাল ময়লায় পরিণত হচ্ছে। সকল দিক বিবেচনা করে ও মানুষের বসবাসের এলাকায় কারখানাটি বন্ধ করার জন্য এলাকাবাসী সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের দৃষ্টি আকর্ষণ করছে।