কুষ্টিয়া নিউজ ডেস্ক ॥ বাঙালির স্বপ্নদ্রষ্টা জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ৭ই মার্চের ঐতিহাসিক ভাষণের মধ্য দিয়ে স্বাধীনতার চুড়ান্ত ঘোষনা দিয়েছিলেন। জাতির জনকের ভাষণের মধ্য দিয়ে নিরস্ত্র বাঙালি পাকিস্তানের বিপক্ষে স্বাধীনতা সংগ্রামে ঝাঁপিয়ে পড়ে। গতকাল কুষ্টিয়া জেলা আওয়ামীলীগের কার্যালয়ে ৭ই মার্চে বঙ্গবন্ধুর ঐতিহাসিক ভাষণের আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা আলহাজ্ব সদর উদ্দিন খান। তিনি আরও বলেন, যে নেতার জন্ম না হলে বাংলাদেশের জন্ম হত না। বাঙালি স্বাধীনতার স্বপ্ন দেখতো না। বঙ্গবন্ধু বাঙালি জাতিকে পরাধীনতার শৃঙ্খল থেকে মুক্ত করে স্বাধীনতা দিয়েছেন। এই জাতির জন্য তিনি জীবনের বেশীর ভাগ সময় জেলে কাটিয়েছেন। অথচ স্বাধীনতার মাত্র সাড়ে ৩ বছরের মাথায় তাঁকে সপরিবারে নিহত হতে হয়েছে। আলোচনা সভায় প্রধান বক্তা হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, জেলা আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা আজগর আলী। তিনি তার বক্তব্যে বলেন, পৃথিবীতে যে কয়টি ভাষণ মানবমুক্তির ঘোষণা দিয়েছে তার মধ্যে বঙ্গবন্ধুর ৭ই মার্চের ভাষণ অন্যতম। আমরা সেদিন রেসকোর্স ময়দানের জনসমূদ্রে উপস্থিত থেকে এই ঐতিহাসিক ভাষণ শোনার সৌভাগ্য হয়েছে। ঐদিন ভাষণ শুনেই এলাকায় চলে এসে যুদ্ধের প্রস্তুতি নেই। আমরা ৭ই মার্চের ভাষণের মধ্য দিয়ে স্বাধীনতার চুড়ান্ত ডাক শুনতে পেয়েছিলাম।
এ্যাড. হাসানুল আসকার হাসু’র পরিচালনায় বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন সাবেক ভিপি শেখ গিয়াস উদ্দিন আহমেদ মিন্টু, সদর উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি এ্যাড. আসম আখতারুজ্জামান মাসুম, সাধারণ সম্পাদক চেয়ারম্যান আখতারুজ্জামান বিশ্বাস, শহর আওয়ামীলীগের সভাপতি তাইজাল আলী খান, সাধারণ সম্পাদক আতাউর রহমান আতা, জেলা কৃষকলীগের সভাপতি প্যানেল মেয়র মতিয়ার রহমান মজনু, জেলা শ্রমিকলীগের সভাপতি গোলাম মোস্তফা, জেলা মহিলা আওয়ামীলীগের সভাপতি জেবুন্নেসা সবুজ, জেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের সভাপতি আক্তারুজ্জামান লাবু, জেলা যুবলীগের যুগ্ম আহবায়ক হাবিবুর রহমান হাবিব, সদর থানা ছাত্রলীগের সভাপতি সোহেল আহমেদ প্রমূখ।
এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন জেলা কৃষকলীগের সাধারণ সম্পাদক লিয়াকত আলী, আওয়ামীলীগ নেতা গাজী আনিসুর রহমান, শহর আওয়ামীলীগের সহ সভাপতি মানজিয়ার রহমান চঞ্চল, দৌলতপুর থানা আওয়ামীলীগের শিক্ষা বিষয়ক সম্পাদক ছাদিকুজ্জামান সুমন, জেলা মহিলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আফরোজা আক্তার ডিউ, সাংবাদিক ইউনিয়ন কুষ্টিয়ার সভাপতি ও রাসেল কন্ঠ সম্পাদক রাশেদুল ইসলাম বিপ্লব, বঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক জোটের সদস্য সচিব জামিল হাসান খোকন, বঙ্গবন্ধু কিশোর সংসদের কুষ্টিয়া জেলা শাখার সভাপতি মাহমুদ হাসান, সাধারণ সম্পাদক মাহাতাব উদ্দিন লালন, জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক সাইফুর রহমান সুমন, সাবেক ছাত্রনেতা আমিনুর রহিম পল্লব, আল আসাদ রেমন, ইবি ছাত্রলীগের সভাপতি সাইফুল ইসলাম, জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক আব্দুল্লাহ আল মামুন প্রমূখ।