দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে তিন ম্যাচ টেস্ট সিরিজের প্রথম টেস্টের প্রথম ইনিংসে কী ভয়াবহ ব্যাটিং বিপর্যয়েই না পড়েছিল ভারতীয় ক্রিকেট দল। হার্দিক পান্ডিয়া ও ভুবনেশ্বর কুমারের বীরত্বপূর্ণ ব্যাটিংয়ে বিপর্যয় কাটিয়ে ওঠে টিম ইন্ডিয়া। তবে তারপরও কেপটাউন টেস্টের প্রথম ইনিংসে ঠিকই ৭৭ রানের লিড পেয়েছে দক্ষিণ আফ্রিকা।

কেপটাউনের নিউল্যান্ডসে ভারতীয় বোলারদের দাপট সত্ত্বেও মিডলঅর্ডার ব্যাটসম্যানদের ছোট অথচ কার্যকরী ইনিংসের সুবাদে প্রথম ইনিংসে গুটিয়ে যাওয়ার আগে ২৮৬ রান করে দক্ষিণ আফ্রিকা। জবাবে ব্যাটিংয়ে নেমে প্রোটিয়া বোলারদের তোপের মুখে পড়ে ৯২ রানে ৭ উইকেট হারিয়ে হারিয়ে ব্যাকফুটে চলে যায় ভারত। সেখান থেকে পান্ডিয়া ও ভুবির লড়াকু ব্যাটিংয়ে গুটিয়ে যাওয়ার আগে ২০৯ রান সংগ্রহ করে ভারত।

ভারতের হয়ে সাত নম্বরে নেমে কাউন্টার-অ্যাটাকে ৯৫ বলে ১৪টি চার ও ১টি ছক্কার সাহায্যে ৯৩ রানের অনবদ্য ইনিংস খেলেন পান্ডিয়া। প্রথম ৩০ বলে কোনো রান না করা ভুবনেশ্বর ৮৬ বলে খেলেন ২৫ রানের কার্যকরী ইনিংস।

এছাড়া চেতেশ্বর পূজারা ২৬ রান করলেও মুরালি বিজয় (১), শিখর ধাওয়ান (১৬), বিরাট কোহলি (৫) ও রোহিত শর্মা (৫) চরম ব্যর্থ হন। দক্ষিণ আফ্রিকার হয়ে ক্যাগিসো রাবাদা ও ভারনন ফিল্যান্ডার তিনটি করে উইকেট নেন। দুটি করে উইকেট নেন মরনে মরকেল ও ডেল স্টেইন।

শনিবার ৩ উইকেটে ২৮ রান নিয়ে ব্যাটিংয়ে নামা ভারত দলীয় ৫৭ রানের মাথায় রোহিতের উইকেট হারায়। আস্থার সঙ্গে খেলতে থাকা পূজারা দলীয় ৭৬ রানের মাথায় ফিরে গেলে বেশ বিপাকে পড়ে যায় টিম ইন্ডিয়া। কিছুক্ষণ পর অশ্বিনকে আউট করে ভারতকে ম্যাচ থেকে ছিটকে দেন ফিল্যান্ডার।

স্টেইন আক্রমণে এসে ভারতের বিপদ আরো বাড়িয়ে দেন। তার করা ৪২তম ওভারের দ্বিতীয় বলে ঋদ্ধিমান সাহা লেগ বিফোরের ফাঁদে পড়ে ফিরে গেলে চরম বিপর্যয়ের মুখে পড়ে ভারত।

তবে অষ্টম উইকেটে বুক চিতিয়ে লড়ে ৯৯ রানের জুটি গড়ে বিপর্যয় সামাল দেন পান্ডিয়া ও ভুবনেশ্বর। চা বিরতির পর ১০ রানের ব্যবধানে ভুবি, পান্ডিয়া ও বুমরাহকে আউট করে টিম ইন্ডিয়া লেজ ছেঁটে দেন রাবাদা ও মরকেল।

এরআগে এবি ডি ভিলিয়ার্স, ফাফ ডু প্লেসিস ও কুইন্টন ডি ককের দায়িত্বশীল ব্যাটিংয়ে মাঝারি মানের সংগ্রহ গড়ে দক্ষিণ আফ্রিকা। দক্ষিণ আফ্রিকার হয়ে ডি ভিলিয়ার্স ৬৫, ডু প্লেসিস ৬২, কেশব মাহরেজ ৩৫, রাবাদা ২৬ এবং ফিল্যান্ডার করেন ২৩ রান।

ভারতের হয়ে ভুবনেশ্বর কুমার চারটি এবং অশ্বিন নেন দুটি উইকেট। এছাড়া একটি করে উইকেট নেন মোহাম্মদ শামি, জসপ্রিত বুমারহ ও হার্দিক পান্ডিয়া।

চলমান দক্ষিণ আফ্রিকা সফরে তিনটি টেস্ট খেলবে ভারত। এরপর প্রোটিয়াদের বিপক্ষে ছয় ম্যাচের ওয়ানডে এবং তিন ম্যাচের টি-টোয়েন্টি সিরিজ খেলবে টিম ইন্ডিয়া।