মানববিহীন যুদ্ধকপ্টার আনল চীন

যুক্তরাষ্ট্র ও ইসরায়েলের পর এবার মানবহীন যুদ্ধ হেলিকপ্টার আনল চীন। বিদেশের বাজারে বিক্রির জন্য প্রথম এই মানববিহীন যুদ্ধ হেলিকপ্টার প্রকাশ্যে আনছে দেশটি৷ দেশের উত্তর-পূর্বের তাইজিং প্রদেশে অনুষ্ঠিত হওয়া চতুর্থ চায়না হেলিকপ্টার এক্সপোতে প্রথম প্রদর্শিত হল হেলিকপ্টার AV500W-কে৷ কপ্টারটি তৈরি করেছে অ্যাভিয়েশন ইন্ডাস্ট্রি কর্পস অফ চায়না৷

মানববিহীন যুদ্ধ কপ্টারটির দৈর্ঘ্য ৭.২ মিটার, ওজন ৪৫০ কিলোগ্রাম ও গতিবেগ ঘণ্টায় ১৭০ কিলোমিটার৷
চীনা সংবাদ মাধ্যম সূত্রে জানা গেছে, ১২০ কিলোগ্রাম ওজনের অস্ত্র ও মালপত্র বহনে সক্ষম এই কপ্টার৷ এর অন্যতম নির্মাণকর্তা জিয়াং তাইয়ু জানিয়েছেন, গত অগস্ট মাসে প্রথম পরীক্ষায় সফল হয়েছে এই কপ্টার৷ এমনকি যেকোন স্থান ও পরিবেশে ওঠা-নামা করতেও সক্ষম এটি৷ চলতি বছরের মধ্যে কপ্টারটির চূড়ান্ত পরীক্ষা শেষ করতে চায় চীন৷ ২০১৮ থেকে শুরু হবে বিদেশে বিক্রি৷

বিশেষজ্ঞরা বলছে, আট কিলোগ্রাম ওজনের এয়ার-টু-গ্রাউন্ড মিসাইল বহনে সক্ষম এই কপ্টর৷ এতে রয়েছে ব়্যাডার হোমিং টেকনলগি৷ পাঁচ কিলোমিটার দূরে থাকা শত্রুকে নিমেষে আঘাত করতে পারবে এটি৷ এছাড়া রয়েছে বোম্বার মেশিন৷ চীনা মিডিয়া সূত্রের খবর, মধ্য-প্রাচ্যের যে সমস্ত দেশ সন্ত্রাসবাদের বিরুদ্ধে লড়াই চালাচ্ছে মূলত তাদের কাছেই এই কপ্টার বিক্রি করতে চায় চীন৷

2018-10-23T10:25:43+00:00October 23rd, 2018|তথ্য প্রযুক্তি|
Advertisment ad adsense adlogger